আজীবন বহিষ্কার চবিতে যৌন নিপীড়নে অভিযুক্ত ৩ ছাত্র

আজীবন বহিষ্কার চবিতে যৌন নিপীড়নে অভিযুক্ত ৩ ছাত্র
ছবি: সংগৃহীত

মোহাম্মদ হাসানঃ চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের এক ছাত্রীকে যৌন নিপীড়নের ঘটনায় সম্পৃক্ত থাকার অভিযোগে তিনজন শিক্ষার্থীকে আজীবন বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।

বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য জানিয়েছেন আজ বা কালকের মধ্যেই তাদের বহিষ্কার করা হবে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রোক্টর ড: রবিউল হাসান গনমাধ্যমকে জানান আজ বিকেলেই বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিসিপ্লিনারি কমিটি এই বিষয়টি নিয়ে বৈঠকে বসবে।

এছাড়া এ ঘটনায় দায়ের করা মামলায় বিশ্ববিদ্যালয়ের তিন ছাত্রসহ চারজনকে আটক করেছে র‍্যাব।

আজ শনিবার দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয়ের বার্ষিক সিনেট সভায় উপাচার্য শিরীণ আখতার জানিয়েছেন র‍্যাব যে চারজনকে আটক করেছে তার মধ্যে বিশ্ববিদ্যালয়ের তিনজন শিক্ষার্থীও আছেন।

গত ১৭ই জুলাই রাতে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে একদল তরুণের হাতে ওই ছাত্রী যৌন নিপীড়নের শিকার হন। এ সময় ওই ছাত্রীকে বেঁধে বিবস্ত্র করে মোবাইল ফোনে ভিডিও ধারণ করা হয়েছে বলেও মামলায় অভিযোগ করা হয়েছে।

এরপর পরদিন বিশ্ববিদ্যালয় প্রোক্টরের কাছে অভিযোগ করেন ওই ছাত্রী এবং এরপর বুধবার তিনি হাটহাজারী থানায় পাঁচজনকে অভিযুক্ত করে মামলাও করেন।

এই ঘটনার খবর ক্যাম্পাসে ছড়িয়ে পড়লে ক্যাম্পাস উত্তাল হয়ে ওঠে প্রতিবাদী হয়ে উঠে সাধারন শিক্ষার্থীরা।

এদিকে ছাত্রীরা উপাচার্যের বাসভবনের সামনে অবস্থান নেয়ার পর মধ্যরাতে বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার সেখানে গিয়ে চারদিনের মধ্যে জড়িত ব্যক্তিদের আইনের আওতায় আনার কথা ঘোষণা করেন।

বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ প্রোক্টর রবিউল হাসান ভুঁইয়ার নেতৃত্বে পাঁচ সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি গঠন করে। এছাড়া প্রক্টরিয়াল বডি শুক্রবার রাতে একটি আবাসিক হলে তল্লাশি চালায় অভিযুক্তদের সন্ধানে।

এরপর শিক্ষার্থীরা নানা কর্মসূচি পালন করে আসছিলো আগামীকাল রবিবারও তাদের কর্মসূচি রয়েছে।

এর মধ্যেই আজ শনিবার ভোরে র‍্যাব ঘটনার সাথে জড়িতদের আটকের খবর দেয়। আর দুপুরে উপাচার্য তাদের বহিষ্কারের সিদ্ধান্তের কথা জানালেন।