ঋণের বোঝা সইতে না পেরে বিষপানে শিক্ষকের আত্মহত্যা

ঋণের বোঝা সইতে না পেরে বিষপানে শিক্ষকের আত্মহত্যা
ছবি সংগৃহীত

জাহিদুল হাসান জাহিদ।স্টাফ রিপোর্টার।। নীলফামারীর সৈয়দপুরে এক শিক্ষক ঋণের বোঝা সইতে না পেরে বিষপানে আত্মহত্যা করেছে।

তার নাম মো.মোখলেছুর রহমান।সে উপজেলার বোতলাগাড়ী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক। বোতলাগাড়ী ইউনিয়নের মৃত রেয়াজ মাস্টারের ছেলে এবং শহরের মিস্ত্রিপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক হালিমা খাতুনের স্বামী।

বুধবার দুপুর ২টায় এই ঘটনাটি ঘটে। গুরুতর অসুস্থ অবস্থায় রংপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেয়ার পথে সে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।

 ঘটনার সুত্রে জানা যায়, মোখলেছুর রহমান স্কুলের শিক্ষক নিয়োগ সংক্রান্ত আর্থিক লেনদেনের ব্যাপারে বিভিন্নভাবে অনেক টাকা ঋণগ্রস্ত হয়ে পড়েন। আগামী ডিসেম্বর মাসে তার অবসর গ্রহণ করার কথা ছিল।পাওনাদারদের চাপ এবং স্বামী-স্ত্রীর মধ্যেও মনোমালিন্য দেখা দেয়।

গত সোমবার সকালে মিস্ত্রীপাড়ার বাসায় স্বামী স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়া হয়। স্ত্রী স্কুলে চলে গেলে একা থাকা অবস্থায় তিনি বিষপান করেন। দুপুরে স্ত্রী হালিমা খাতুন বাড়িতে এলে তাকে গুরুতর অসুস্থ অবস্থায় পান।

তখন তাকে সৈয়দপুর ১০০ শয্যা হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানে তার শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে দায়িত্বরত চিকিৎসক দ্রুত রংপুর মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে পাঠায়। রংপুরে নেয়ার পথে তিনি মারা যান। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৫৭ বছর।