কক্সবাজারে প্রশাসনের ৬ কর্মকর্তা -কর্মচারী পেলেন শুদ্ধাচার পুরস্কার 

কক্সবাজারে প্রশাসনের ৬ কর্মকর্তা -কর্মচারী পেলেন শুদ্ধাচার পুরস্কার 
ছবি: সংগৃহীত

শাহজাহান চৌধুরী শাহীন, স্টাফ রিপোর্টার, কক্সবাজার, ৩০ জুন।।  কর্মক্ষেত্রে শুদ্ধাচার চর্চার স্বীকৃতিস্বরূপ কক্সবাজার জেলা প্রশাসন ও উপজেলা প্রশাসন হতে নির্বাচিত শ্রেষ্ঠ ছয় কর্মকর্তা-কর্মচারীকে শুদ্ধাচার- ২০২১-২০২২ পুরস্কার  দেয়া হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (৩০ জুন) সকাল ১০ টায় কক্সবাজার জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত শুদ্ধাচার পুরস্কার ২০২১-২০২২ প্রদান অনুষ্ঠানে শুদ্ধাচার পুরস্কারের সন্মাননা ও সনদ তুলে দেন জেলা প্রশাসক মো: মামুনুর রশীদ।
শুদ্ধাচার চর্চার মাধ্যমে বিশেষ অবদান রাখায় শুদ্ধাচার পুরস্কার প্রাপ্তরা হলেন- জেলা পর্যায়ে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) জাহিদ ইকবাল,(গ্রেড ০৩-০৯), মেসবাহুল করিম, অফিস সহকারী কাম কম্পিউটার মুদ্রাক্ষরিক (গ্রেড ১০-১৬), রিফাত উদ্দিন, অফিস সহায়ক (গ্রেড ১৭-২০) এবং উপজেলা পর্যায়ে পারভেজ চৌধুরী, সাবেক উপজেলা নির্বাহী অফিসার, টেকনাফ (বর্তমানে সিনিয়র সহকারী সচিব, শরণার্থী ত্রাণ ও পুনর্বাসন কমিশনারের কার্যালয়, কক্সবাজার এ সংযুক্ত) (গ্রেড ০৪-০৯), মোস্তফা আহমেদ, উপ-প্রশাসনিক কর্মকর্তা, উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয়, টেকনাফ (বর্তমানে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়, কক্সবাজার এ সংযুক্ত ( গ্রেড ১০-১৬), শংকর কুমার শীল, অফিস সহায়ক, উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয়, কুতুবদিয়া (গ্রেড ১৭-২০)।
জেলা প্রশাসক মো. মামুনুর রশীদ  বলেন, সোনার বাংলা গড়ার প্রত্যয়ে জাতীয় শুদ্ধাচার কৌশল অত্যন্ত জরুরী। 
ভালো কাজের জন্য পুরস্কার এবং মন্দ কাজের জন্য তিরস্কার এটি সর্বক্ষেত্রে প্রতিষ্ঠিত করতে হবে। ভালো কাজের স্বীকৃতি দিলে কর্মস্পৃহা ও উৎসাহ বাড়িয়ে দেয়। তেমনি মন্দ কাজের জন্য শাস্তি দিলে সতর্ক হওয়া এবং নিজেকে সুধরে নেয়ার সুযোগ পাবে।
তিনি বলেন, দেশ ও জাতি গঠনের জন্য শুদ্ধাচারের বিকল্প নেই। বিশ্বব্যাপি উন্নত দেশগুলো আজ এ পর্যায়ে উঠে আসার নেপথ্যেও শুদ্ধাচারের চর্চার ফল। তাই আমাদের দেশের সামগ্রিক ভাগ্য ফেরাতে শুদ্ধাচার চর্চায় সম্মিলিত ভাবে এগিয়ে যেতে হবে।
পুরস্কার বিতরণ আরও উপস্থিত ছিলেন, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক ( রাজস্ব) মো. আমিন আল পারভেজ, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (উন্নয়ন ও মানবসম্পদ ব্যবস্থাপনা) মোঃ নাসিম আহমেদ, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) বিভীষণ কান্তি দাশ,অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট
মোঃ আবু সুফিয়ান,সহকারী কমিশনার ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট নওশের ইবনে হালিমসহ
জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের অন্যান্য কর্মকর্তাবৃন্দ এবং আওতাধীন দপ্তর ও উপজেলা প্রধানগণ উপস্থিত ছিলেন।