গোবিন্দগঞ্জে ট্রেনের নিচে লাফদিয়ে আত্মহত্যা বিএডিসির স্টোরকিপারের

গোবিন্দগঞ্জে ট্রেনের নিচে লাফদিয়ে আত্মহত্যা বিএডিসির স্টোরকিপারের
ছবি: সংগৃহীত

আবু তাহের, স্টাফ রিপোর্টার।।চাকরি থেকে সাময়িক বরখাস্ত হওয়ায় দিনাজপুর বিএ ডিসিতে কর্মরত এক স্টোরকিপার ট্রেনে কেটে আত্মহত্যা করেছেন।

শনিবার (৫ অক্টোবর) দিবাগত মধ্যরাতে গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার শালমারা ইউনিয়নের হিয়াতপুর রেলসেতুর কাছে ঢাকাগামী রংপুর এক্সপ্রেস ট্রেনের চাকায় কেটে নিহত হয়। ওই ব্যক্তির নাম হাফিজুর রহমান (২৮)।

 তিনি পাশ্ববর্তী কামালেরপাড়া ইউনিয়নের ফলিয়া পাকুরতলা গ্রামের সাবেক ইউপি সদস্য আব্দুল খালেকের কনিষ্ঠ পুত্র।

নিহতের স্বজনরা জানান, দিনাজপুর বিএডিসিতে স্টোর কিপার হিসাবে কর্মরত হাফিজুর রহমান ১১ লক্ষ টাকার হিসাব না মেলায় সম্প্রতি চাকরী থেকে সাময়িক বরখাস্ত হন। এই টাকা জমা দেয়ার জন্য গত শনিবার তিনি বাড়িতে এসে পরিবারের কাছে ১১ লক্ষ টাকা সংগ্রহ করে চাইলে কিছুটা বাকবিতন্ডার সৃষ্টি হয় স্বজনদের সাথে। পরে কাউকে না জানিয়ে রাত ১০টার দিকে তিনি বাড়ি থেকে বের হয়ে যান।

রোববার (৬ অক্টোবর) সকালে পাশ্ববর্তী শালমারা ইউনিয়নের লালমনিরহাট-সান্তাহার রেলপথের ৩৫৩ কিলোমিটার এলাকার ৪২ নম্বর হিয়াতপুর সেতুর উত্তর দিকের রেল লাইনের ওপর ও সেতুর নিচে পানিতে পড়ে যাওয়া তার খন্ড-খন্ড মরদেহ পড়ে থাকতে দেখতে পায় এলাকাবাসী। স্বজনরা এসে তার মরদেহ সনাক্ত করে। 

পরিবারের সদস্যরা অভিযোগ করেছেন, এক বছর বয়সী এক শিশুকন্যার জনক হাফিজুর রহমান চাকরি থেকে সাময়িক বরখাস্তের কারণে আত্মহত্যা করেছেন।

শালমারা ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) চেয়ারম্যান আনিছুর রহমান আনিস ট্রেনে কেটে মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।