জবি শিক্ষার্থী আকবর হত্যার সুষ্ঠু বিচারের দাবিতে মানববন্ধন 

জবি শিক্ষার্থী আকবর হত্যার সুষ্ঠু বিচারের দাবিতে মানববন্ধন 
ছবি: সংগৃহীত

তানভীর আহমেদ, জবি প্রতিনিধি।। সারাদেশে আলোচিত জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের (জবি) ম্যানেজমেন্ট স্টাডিজ বিভাগের ২০১৬-১৭ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী আকবর হোসেন হত্যা কান্ডের এক বছর পেরোলেও এখনো পর্যন্ত হয়নি সুষ্ঠু বিচার। সুষ্ঠু তদন্ত ও বিচারের দাবিতে মানববন্ধন করেছে বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারণ শিক্ষার্থী এবং স্বজনেরা। 

(শুক্রবার) বিকেলে ক্যাম্পাসের শহীদ মিনারের সামনে এ মানববন্ধন ও সংবাদ সম্মেলন কর্মসূচি পালন করেন তার সহপাঠী এবং আত্মীয়স্বজনেরা। 

সংবাদ সম্মেলনে আকবরের বড় বোন জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক শিক্ষার্থী মোসা. লাবনী খানম আঁখি বলেন, আমার ভাইকে গত বছরের ২৭ আগস্ট চট্টগ্রামের একটি ফ্লাইওভার থেকে ফেলে দিয়ে কে বা কারা হত্যাকান্ড ঘটিয়েছে তা এখনো সুষ্ঠ তদন্তের মাধ্যমে বের করতে পারে নি প্রশাসন। একটা হত্যাকান্ডের সুষ্ঠু তদন্তের জন্য যদি এত সময় নেয় প্রশাসন তাহলে পরিবারের সদস্যরা কিভাবে শান্তিতে বসবাস করবে। 

লাবনী খানম বলেন, ঘটনাস্থলে অবস্থানরত প্রতক্ষ্যদর্শীরা যখন আকবরকে অজ্ঞান ও আহত অবস্থায় হাসপালে নিয়ে যায় তখন তার কোমরের বাম পাশে ভোতা অস্ত্রদিয়ে গভীর এক ক্ষত ছিল। ফ্লাইওভার থেকে ফেলে দেয়ায় তার ব্রেইন অনেকাংশে থেতলে যায়। ব্রেইনে রক্তক্ষরণ হয়ে, টানা ৫দিন চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল এ আইসিইউ তে জীবন-মৃত্যুর সাথে যুদ্ধ করে ১ সেপ্টেম্বর ভোরে আকবর এর মৃত্যু হয়।

লাবনী খানম আরও বলেন, চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের ডাক্তারের বক্তব্য এবং চট্টগ্রাম খুলসী থানা পুলিশের তদন্ত প্রাপ্ত আলামতের ভিত্তিতে প্রাথমিক তদন্তে চট্টগ্রাম খুলসী থানা পুলিশ এটিকে পরিকল্পনা মাফিক হত্যা বলে নিশ্চিত করে।

তিনি আরও বলেন, দীর্ঘ এক বছর পার হয়ে গেলেও অপরাধীরা এখনো ধরা-ছোয়ার বাইরে। পুলিশ দীর্ঘদিন সন্তোষজনক কোনো তথ্য সংগ্রহ করতে না পারায় তদন্তভার চট্টগ্রাম পিবিআই কে হস্তান্তর করা হয়। কিন্তু পিবিআই চট্টগ্রামও এখনো কোন অগ্রগতি করতে পারছে না বলে জানান তিনি।

মানববন্ধনে আকবরের সহপাঠীরা বলেন, মৃত আকবরের সাথে খুব অন্যায় হয়েছে, তাকে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়েছে। দীর্ঘ এক বছর পেরিয়ে গেলেও আকবরের হত্যার রহস্য সম্পর্কে আমরা ধোয়াশায় রয়েছি। পিবিআই এর হাতে তদন্তভার যাবার পরে আমরা আশা করেছিলাম দ্রুত এ হত্যা রহস্য উদ্ঘাটন হবে। কিন্তু চট্টগ্রাম পিবিআইও কোন সদুত্তর এখনো আমাদের না দিতে পারায় আমরা আশাহত।

হত্যান্ডের তদন্তের সর্বশেষ পরিস্থিতি চট্টগ্রাম পিবিআই এর তদন্ত এর সাথে যোগাযোগ করার চেষ্টা করা হলেও কাউকে পাওয়া যায়নি।

উল্লেখ্য, গত ২৭ আগস্ট ২০২১ তারিখ রাত্রে পরিকল্পনা মাফিক ঢাকা হতে চট্টগ্রাম নিয়ে গিয়ে ভোতা অস্ত্র দিয়ে কোমরে গুরুতর জখম করে এবং চট্টগ্রামের আখতারুজ্জামান ফ্লাইওভার থেকে ফেলে দিয়ে নৃশংস ভাবে হত্যা করা হয় আকবরকে। প্রাথমিক তদন্তে খুলসী থানা পুলিশ এটিকে পরিকল্পিত হত্যাকাণ্ড বলে নিশ্চিত করে। কিন্তু দীর্ঘ এক বছর পেরিয়ে গেলেও এই হত্যাকাণ্ডের অপরাধীরা এখনও ধরা ছোয়ার বাইরে রয়ে গেছে।