টেকনাফে গুলিবিদ্ধ ইয়াবা কারবারী আটক : অস্ত্র, গুলি ও ইয়াবা উদ্ধার 

টেকনাফে গুলিবিদ্ধ ইয়াবা কারবারী আটক : অস্ত্র, গুলি ও ইয়াবা উদ্ধার 
ছবিঃ সংগৃহীত

শাহজাহান চৌধুরী শাহীন, কক্সবাজার, ১১ জুলাই।। কক্সবাজারের সীমান্ত উপজেলা টেকনাফে পায়ে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় একজন ইয়াবা কারবারীকে আটক করেছে র‍্যাব-১৫। এসময় একটি দেশীয় তৈরি অস্ত্র, ২ রাউন্ড গুলি ও ২০ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। গত ১০ জুলাই রাতে এ অভিযান চালায় র‍্যাব। 

র‍্যাব-১৫ সুত্রে জানা গেছে, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‍্যাব জানতে পারেন, টেকনাফ ঘানাধীন হ্নীলা ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ড কক্সবাজার-টেকনাফ সড়কের আলীখালী রাস্তার মাথায় কতিপয় মাদক ব্যবসায়ী মাদক কেনা-বেচার জন্য অবস্থান করছে। এমন খবরের ভিত্তিতে ১০ জুলাই রাত ৮ টার দিকে র‍্যাব-১৫ এর একটি চৌকস টীম উক্ত স্থানে পৌঁছলে র‍্যাব সদস্যদের উপস্থিতি টের পেয়ে ৩/৪ জন মাদক ব্যবসায়ীর মধ্যে একজন র‍্যাব লক্ষ্য করে অস্ত্র তাক করেন। র‍্যাব সদস্যরা সরকারী সম্পদ ও জানমাল রক্ষার্থে এক রাউন্ড গুলি ছুঁড়ে।

র‍্যাব আরও জানায়, উক্ত গুলিটি অস্ত্রধারী মাদক কারবারী নুর মোহাম্মদ (৩৭) এর বাম পায়ে বিদ্ধ হয়ে মাটিতে পড়ে গেলে তাকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় আটক করা হয়। তার ২/৩ জন সহযোগী পালিয়ে যায়।

সে টেকনাফ উপজেলার হ্নীলা ইউনিয়নের দক্ষিণ রঙ্গিখালী ৭নং ওয়ার্ড এলাকার মৃত মোহাম্মদ হোসনের ছেলে। একটি অভিযানে ১ টি দেশীয় তৈরি অস্ত্র, ২ রাউন্ড গুলি ও ২০ হাজার পিস ইয়াবাসহ একজন মাদক কারবারিকে পায়ে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় গ্রেপ্তার করেছে র‍্যাব-১৫।টেকনাফ উপজেলার হ্নীলা ইউনিয়নের দক্ষিণ রঙ্গীখালী এলাকার মৃত মোহাম্মদ হোসেনের ছেলে নুর মোহাম্মদ। এসময় তার হাতে থাকায় দেশীয় তৈরি একটি লম্বা বন্দুক, ২ রাউন্ড গুলি ও ব্যাগ তল্লাশি করে ২০ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়।

কক্সবাজার র‌্যাব-১৫ এর সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার
(মিডিয়া এন্ড অপারেশনস) আবদুল্লাহ মোহাম্মদ শেখ সাদী জানান, গুলিবিদ্ধ আটক ইয়াবা কারবারীকে র‌্যাবের তত্ত্বাবধানে 
চিকিৎসার জন্য কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এব্যাপারে মামলার প্রক্রিয়া চলছে বলে জানান তিনি।