বাউফলে ইউপি নির্বাচনের প্রস্তুতি সম্পূর্ণ

বাউফলে ইউপি নির্বাচনের প্রস্তুতি সম্পূর্ণ
ছবিঃ সংগৃহীত

মো.ফোরকান,বাউফল,পটুয়াখালী।। ২০ জুন,রবিবার।।পটুয়াখালীর বাউফল উপজেলার ৯টি ইউনিয়নে ইউপি নির্বাচনে  প্রশাসনের পক্ষ থেকে প্রস্তুতি সস্পূর্ণ করা হয়েছে। আগামীকাল (২১ জুন) সোমবার অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে ৯টি ইউনিয়নের ইউপি নির্বাচন। নির্বাচনের ১দিন বাকি আছে প্রতিদ্বন্ধি প্রার্থীদের মধ্যে দৌড়ঝাপও বেড়েগেছে। প্রবল বৃষ্টিপাতের মধ্যে দিয়েও সকাল থেকে গভীর রাত পর্যন্ত প্রার্থী ও তাদের কর্মী-সমর্থকরা পুরো নির্বাচনী মাঠ চসে বেড়াচ্ছেন। বিভিন্ন কৌশলে তারা ভোটারদের দ্বারে দ্বারে ঘুরে ভোট প্রার্থনা করছেন। নির্বাচনের শেষ মুহুর্তে প্রচার প্রচারনায় জমে উঠেছে উপজেলার ৯টি ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন।

ইউপি চেয়ারম্যান পদে আ.মীলীগের দলীয় প্রতিকের বিরুদ্ধে দলের বিদ্রোহীরা স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে প্রতিদ্বন্ধিতা করছেন। দেখা গেছে সরকারি দলের নেতা কর্মীরা দলীয় প্রার্থীদের জিতিয়ে আনার জন্য উপজেলা থেকে ওই ৯টি ইউনিয়নের প্রতি ওয়ার্ডে ওয়ার্ডে হাট-বাজারে  প্রকাশ্যে মিছিল মিটিং ও ভোট প্রার্থনা করছেন। ৯টি ইউনিয়নের মধ্যে কালাইয়া ও কালিশুরী ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে কোন প্রতিদ্বন্ধি না থাকায় কালাইয়া ইউনিয়নে ফয়সাল আহম্মেদ মনির মোল্লা ও কালিশুরী ইউনিয়নে জামাল হোসেন সিকদার  বিনা প্রতিদ্বন্ধিতায় নৌকা মার্কা নিয়ে চেয়ারম্যান হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন। ওই ২ ইউনিয়নে ইউপি সদস্য পদে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।
সরেজমিনে গিয়ে  জানা গেছে,বিএনপি দলীয়  কোন প্রার্থী না থাকায় সরকার দলীয় প্রার্থী ও স্বতন্ত্র প্রার্থীদের মধ্যে মূলত প্রতিদ্বদ্ধিতা হবে ।
 বাউফল উপজেলা নির্বাহী অফিসার জাকির হোসেন বলেন, নির্বাচন শান্তিপূর্ন করতে ৯টি ইউনিয়নের নির্বাচনের সকল প্রকার প্রস্তুতি সম্পূর্ণ করা হয়েছে। ভোট সুষ্ট করতে ২৭জন জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট নিয়োজিত থাকবেন। প্রতি কেন্দ্রে পর্যাপ্ত পরিমাণে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী নিয়োজিত থাকবে। 
বাউফল থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আল-মামুন বলেন,প্রতি ভোট কেন্দ্রে ১৭জন আনসার ও ৫জন করে পুলিশ থাকবে।এছাড়াও প্রতি ইউনিয়নে র‍্যাব,বিজিবি ও পুলিশের মোবাইল টিম থাকবে।