বোরহানউদ্দিনে প্রবাসীর স্ত্রী  কুপ্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় ধর্ষণের চেষ্টা: আদালতে মামলা

বোরহানউদ্দিনে প্রবাসীর স্ত্রী  কুপ্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় ধর্ষণের চেষ্টা: আদালতে মামলা
ছবি: সংগৃহীত

মিলি সিকদার।। বোরহানউদ্দিনে প্রবাসীর স্ত্রী কে কুপ্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় ধর্ষণের চেষ্টা। আদালতে মামলা

ভোলার বোরহানউদ্দিন উপজেলার উদয়পুর রাস্তার মাথা ৩নং ওয়ার্ডের আমিনুল ইসলাম (৩৩) এর কুপ্রস্তাবে রাজি না হলে জোরপূর্ব ধর্ষণের চেষ্টা।
 
প্রবাসীর স্ত্রী পারুল বেগম (৩০) জানান- গত ২৩-০৯-২০২২ আনুমানিক রাত ৮ টার দিকে বাথরুমের  উদ্দেশ্য বাহিরে বের হলে আমিনুল ইসলাম পিছন দিক থেকে আমার গলায় পেছানো কাপড় ধরে টান দিয়ে আমাকে জড়িয়ে ধরে ধর্ষণের চেষ্টা করে। গলায় পেছানো ওড়না  ধরে টানাটানি করলে গলায় ওড়না  টান লেগে কেটে যায়,পুরুষ বলতে কেউ বাসায় ছিলোনা, আমার মেয়ে ঘরের পিছনে আমার চিৎকার শুনে, আমার মেয়েও জোরে চিৎকার দিয়ে উঠলে, আমিনুল ইসলাম দৌড়ে পালিয়ে যায়। এছাড়াও অনেক আগ থেকেই বিভিন্ন ভাবে আমাকে কুপ্রস্তাব দিয়ে আসছে ,আমাকে ফোন করে বিভিন্ন  জায়গায় ঘুরাঘুরি জন্য প্রস্তাব দেন।  আমার স্বামী ৪-৫ বছর ধরে ওমান প্রবাসী, আমি তার কুপ্রস্তাবে রাজি না হলে জোরপূর্ব আমাকে ধর্ষণের চেষ্টা করে। আমি এলাকার গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গকে বিষয়টি জানাই তারা তার সাথে এই বিষয় নিয়ে কথা বলতে অনীহা প্রকাশ করেন। কারো কাছে বিচার না পেয়ে পরে ভোলা কোর্টে গিয়ে আমি মামলা দায়ের করি।


উল্লেখিত বিষয় নিয়ে আমিনুল ইসলামের সাথে যোগাযোগ করলে তিনি জানান- পারুল বেগম এর কাছে আমি ৫০০,০০০/ পাঁচ লাখ টাকা পাবো, সেই টাকা চাইতে গেলে আমার বিরুদ্ধে ধর্ষের অভিযোগ তুলে। এছাড়াও তিনি আমাকে বিভিন্ন সময় হুমকি দিয়ে আসছে। আমিও তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্হা গ্রহণ করি।