মৃত্যুপুরীতে ঠাঁই নিয়েছে পূণ্যভূমি সিলেট একদিনে ফের সর্বোচ্চ মৃত্যুর রেকর্ড!

মৃত্যুপুরীতে ঠাঁই নিয়েছে পূণ্যভূমি সিলেট একদিনে ফের সর্বোচ্চ মৃত্যুর রেকর্ড!
ছবি: সংগৃহীত

সিলেট অফিস।। ১৯ আগস্ট, বৃহস্পতিবার।।করোনায় যেন দিশেহারা সিলেট। রেকর্ড সংখ্যক মৃত্যু সংবাদ শুনে আঁতকে উঠেন সিলেটবাসী। সড়কে বেরোলেই অ্যাম্বুলেন্সের সাইরেনের শব্দ। রোগী নিয়ে স্বজনদের ছুটে চলা এক হাসপাতাল থেকে অন্য হাসপাতালে। কেবল অ্যাম্বুলেন্স নয়, সাধারণ যানবাহনেও রোগী নিয়ে হাসপাতাল ছুটছেন স্বজনরা। আর কোথাও কোথাও মসজিদের মাইকে জানিয়ে দেওয়া হচ্ছে মৃত্যুর খবর। স্যোসাল মিডিয়াতেও ভাসছে অনেকের মৃত্যুর সংবাদ। এ যেন মৃত্যুপুরীতে ঠাঁই নিয়েছে ৩৬০ আউলিয়ার পূণ্যভূমি।

গত ২৪ ঘণ্টায় আবারও সর্বোচ্চ মৃত্যুর ঘর ছুঁয়েছে। চব্বিশ ঘন্টায় এখানে মারা গেছেন ২২ জন। একই সময়ে নতুন রোগী শনাক্ত হয়েছেন ৪৭৮ জন। ১৯ আগষ্ট বৃহস্পতিবার দুপুরে স্বাস্থ্য অধিদফতর সিলেট বিভাগীয় কার্যালয় এ তথ্য জানিয়েছেন।

তারা জানায়, বুধবার সকাল ৮টা থেকে বৃহস্পতিবার সকাল ৮টার মধ্যে সিলেট বিভাগে করোনাক্রান্ত ২২ জন মারা গেছেন। যা চব্বিশ ঘন্টায় সর্বোচ্চ মৃত্যুর রেকর্ড। এর আগে গত ১০ আগস্ট সকাল ৮টার থেকে ১১ আগস্ট সকাল ৮টার মধ্যে ২২ জন মারা গিয়েছিলেন।

নতুন করে মারা যাওয়াদের মধ্যে ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ৫ জনসহ ২০ জনই সিলেট জেলায় মারা গেছেন। মৃতদের মধ্যে সুনামগঞ্জ ও হবিগঞ্জের ১ জন করে রয়েছেন।
এ নিয়ে বিভাগে ৯৫৩ জন মারা গেলেন করোনাক্রান্ত হয়েছে। তন্মধ্যে ওসমানী হাসপাতালে ৮১ জনসহ সিলেট জেলায় মারা গেছেন ৭৭৫ জন। মৃতদের মধ্যে সুনামগঞ্জের ৬৩ জন, মৌলভীবাজারের ৬৯ জন ও হবিগঞ্জের ৪৬ জন রয়েছেন।

এদিকে, সর্বশেষ চব্বিশ ঘন্টায় বিভাগে ৪৭৮ জনের শরীরে করোনার সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে। শনাক্তদের মধ্যে ওসমানী হাসপাতালে ৫০ জনসহ ২০০ জন সিলেটের। বাকিদের মধ্যে রয়েছেন সুনামগঞ্জের ৮৮ জন, মৌলভীবাজারের ১৫৯ জন ও হবিগঞ্জের ৩১ জন।

২০৩৩ জনের নমুনা পরীক্ষা করে তাদেরকে শনাক্ত করা হয়েছে। শনাক্তের হার ২৩.৫১ ভাগ।
বিভাগে করোনাক্রান্তের সংখ্যা এখন ৫০ হাজার ৫২০ জন। এর মধ্যে সিলেট জেলায় ৩১ হাজার ২৫৪ জন শনাক্ত হয়েছেন। সুনামগঞ্জের ৫ হাজার ৮৪২ জন, মৌলভীবাজারের ৭ হাজার ৩৪৯ জন ও হবিগঞ্জের ৬ হাজার ৭৫ জন রয়েছেন শনাক্তদের তালিকায়।

সিলেট বিভাগীয় পরিচালক (স্বাস্থ্য) ডা. হিমাংশু লাল রায় জানান, সর্বশেষ চব্বিশ ঘন্টায় সুস্থ হয়ে ওঠেছেন ৫৯৭ জন। সবমিলিয়ে সুস্থ হওয়াদের সংখ্যা ৩৯ হাজার ৪২ জন।
তিনি জানান, ৫১৪ জন করোনা রোগী সিলেটের বিভিন্ন হাসপাতালে এখন চিকিৎসাধীন রয়েছেন।