রংপুরের প্রথম শহিদ শংকু সমজদারের বাড়ি সংস্কার

রংপুরের প্রথম শহিদ শংকু সমজদারের বাড়ি সংস্কার
ছবিঃ সংগৃহীত

তৌহিদুল ইসলাম।।স্টাফ রিপোর্টার।।মহান মুক্তিযুদ্ধে রংপুরের প্রথম শহীদ শঙ্কু সমজদারের বাড়িটি সংস্কার করা হয়েছে। রংপুর জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে স্থানীয় সমাজসেবী ওয়াসীমুল বারী রাজ এ কাজটি সম্পন্ন করেছেন।

বাড়িটি সংস্কার করে দেওয়ায় জেলা প্রশাসক ও সমাজসেবী ওয়াসীমুল বারী রাজের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন শহীদ পরিবারটি।

রবিবার (১৯ ডিসেম্বর) সরজমিনে গিয়ে দেখা যায়, মুক্তিযুদ্ধের প্রাক্কালে শহীদ শঙ্কুর স্মৃতিকে ধরে রাখতে ওই বাড়ির ফটকের দুই পাশে তৈরি করা হয়েছে নয়নাভিরাম টেরাকোটার ক্যানভাস। সংস্কার করা হয়েছে জীর্ণ চালার ঘরসহ বিভিন্ন অবকাঠামো। পুরনো সব জীর্ণ চালা ঘর ভেঙে নতুন করে বিশালাকার বেশ কয়েকটি শোয়ার ঘর, সেইসঙ্গে রান্না, বাথরুম ও পূঁজোর ঘর শোভা পাচ্ছে বাড়িটিতে।

এখন পথচারীসহ দূর-দূরান্তের যেকোনো মানুষ সহজেই মুক্তিযুদ্ধে রংপুরে প্রথম শহীদ শঙ্কুর স্মৃতিচিহ্ন দেখতে পারবে।

১৯৭১ এর ৩ মার্চ বিক্ষোভ মিছিলে রংপুর শহরের স্টেশন রোড এলাকায় গুলিবিদ্ধ হয়ে শহীদ হন শঙ্কু। বিক্ষোভ মিছিলে অংশ নেন রংপুর কৈলাশরঞ্জন স্কুলের ৬ষ্ঠ শ্রেণির ছাত্র শঙ্কু সমজদার।

রংপুর শহরের কামাল কাছনায় দীর্ঘদিন যাবত জীর্ণ বাড়িটিতে বাস করছিলেন শঙ্কুর মা শতবর্ষী দ্বীপালি সমজদার।

শহীদ শঙ্কুর মা শতবর্ষী দ্বীপালি সমজদার বলেন, বাড়িটি সংস্কারের ব্যাপারে রংপুরের জেলা প্রশাসক আসিব আহসান বড় ভূমিকা রেখেছেন।