লক্ষ্মীপুরে চাচাকে হত্যার দায়ে ভাতিজা রুবেলের যাবজ্জীবন কারাদন্ড

লক্ষ্মীপুরে চাচাকে হত্যার দায়ে ভাতিজা রুবেলের যাবজ্জীবন কারাদন্ড
ছবি: সংগৃহীত
এস এম আওলাদ হোসেন, সিনিয়র রিপোর্টার।।
লক্ষ্মীপুরে পূর্ব বিরোধের জেরে প্রবাসী চাচা হারুনুর রশিদকে ছুরিকাঘাতে হত্যায় দায়ে ভাতিজা আরিফ হোসেন রুবেলকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছে আদালত। একই সাথে তাকে ১০ হাজার টাকা অর্থদণ্ডও দেয়া হয়।
বৃহস্পতিবার (২১ এপ্রিল) দুপুরে জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মো. রহিবুল ইসলাম এ রায় দেন।
দন্ডপ্রাপ্ত রুবেল সদরের দত্তপাড়া ইউনিয়নের শ্রীরামপুর গ্রামের আবু জাফরের ছেলে।
আদালত সূত্র জানায়,লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার দত্তপাড়া ইউনিয়নের শ্রীরামপুর গ্রামে ২০১৮ সালের ১৯ ফেব্রুয়ারী ঘরে ঢুকে চাচা হারুনুর রশিদকে উপর্যুপরি ছুরিকাঘাত করে ভাতিজা রুবেল। এতে তার পেটের নাড়ি-ভুড়ি বের হয়ে যায় তার। পরে স্বজনদের সহযোগিতায় সেখান থেকে উদ্ধার করে তাকে দ্রুত সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়। অবস্থার অবনতি দেখে নোয়াখালী এশিয়ান হাসপাতালে নেয়া হয়। পরের দিন সকালে মৃত্যু হয় চাচা হারুনের।
এ ঘটনায় নিহতের স্ত্রী সুইটি আক্তার বাদী হয়ে রুবেলের বিরুদ্ধে চন্দগঞ্জ থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন। একই বছরে পুলিশ প্রতিবেদন দাখিল করেন। সাক্ষ্য-শুনানি শেষে মামলার প্রায় সাড়ে তিন বছর পর আজ এ আদেশ দেন আদালতের বিচারক। এসময় আসামী আদালতে উপস্থিত ছিলেন না।
রায়ের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন লক্ষ্মীপুর জজ আদালতের সরকারি কৌশুলী (পিপি) এডভোকেট জসিম উদ্দিন।