লক্ষ্মীপুরে প্রবাসীর বাসায় দুর্ধর্ষ চুরি, স্বর্ণালংকার ও টাকা লুট

লক্ষ্মীপুরে প্রবাসীর বাসায় দুর্ধর্ষ চুরি, স্বর্ণালংকার ও টাকা লুট
ছবি: সংগৃহীত

 এস এম আওলাদ হোসেন, সিনিয়র রিপোর্টার।। লক্ষ্মীপুরে ভেন্টিলেটর ভেঙে প্রবাসীর বাসায় প্রবেশ করে সংঘবদ্ধ ‘চোর চক্র’ প্রায় ৩ ভরি স্বর্ণালংকার ও ৭৫ হাজার টাকাসহ মালামাল লুটে নেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। রোববার (৯ অক্টোবর) দুপুরে ভূক্তভোগী পরিবার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। এর আগে শনিবার (৮ অক্টোবর) রাতের কোন এক সময়ে লাহারকান্দি ইউনিয়নের তালহাটি গ্রামের কুয়েত প্রবাসী জাহাঙ্গীর হোসেনের বাসায় এ দুর্ধর্ষ চুরির ঘটনা ঘটে।

ভূক্তভোগী পরিবার জানায়, শুক্রবার (৭ অক্টোবর) সন্ধ্যায় জাহাঙ্গীরের স্ত্রী জোৎস্না আক্তার বাবার বাড়ি লক্ষ্মীপুর পৌরসভার আটিয়াতলি এলাকায় বেড়াতে যায়। জাহাঙ্গীর কুয়েতে আছেন। সন্তানদের নিয়ে জোৎস্না বাবার বাড়িতে বেড়াতে যাওয়ায় বাসাটি খালি ছিল। রোববার সকালে বাড়ি ফিরে তালা খুলে বাসায় ঢুকে এলোমেলো অবস্থায় মালামাল পড়ে থাকতে দেখেন। এতে প্রতিটি কক্ষে ঢুকে তিনি স্টিলের আলমিরা, কাঠের ও প্লাষ্টিকের ওয়ারড্রবের তালা ভাঙা অবস্থায় পায়। চোর চক্র স্টিলের আলমিরার লক ভেঙে প্রায় ৩ ভরি স্বর্ণালংকার, ৭৫ হাজার টাকা, ব্যাংক হিসেবের চেক বই, বাসায় থাকা জুতা, সাবান, ফ্রাইপ্যানসহ বিভিন্ন আসবাবপত্র লুটে নিয়ে যায়। ভুক্তভোগী জোৎস্না আক্তার জানান, গেট ও দরজার তালা অক্ষত ছিল। ভেন্টিলেটর ভেঙে আমার বাসায় ডাকাতি করা হয়েছে। এ ঘটনাকে কোনভাবেই চুরি বলা যাবে না,এটি ডাকাতি। কারণ আমার স্বর্ণালংকার, নগদ টাকা ও মালামাল লুটে নিয়েছে ডাকাতদল।

লাহারকান্দি ইউনিয়ন পরিষদের ৩ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য (মেম্বার) আলমগীর হোসেন বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। সংঘবদ্ধ চক্র ঘটনাটি ঘটিয়েছে। এটি ডাকাতির ঘটনা৷ এ ধরণের ঘটনা এ এলাকায় আর কখনো ঘটেনি। সুষ্ঠু তদন্তের মাধ্যমে জড়িতদের চিহ্নিত করে আইনের আওতায় আনার দাবি জানাচ্ছি।

লক্ষ্মীপুর সহকারী পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) সোহেল রানা বলেন, ঘটনাটি শুনেছি। এটি ডাকাতি না চুরি তা বলা যাচ্ছে না। ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। ভূক্তভোগী পরিবারকে থানায় অভিযোগ দেওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। তদন্ত করে প্রয়োজনী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।