ঝালকাঠিতে সংকট নিরসনে হাসপাতালে ২ হাজার স্যালাইন দিলেন "এমপি আমু"। দৈনিক আজকাল বাংলা।।

ঝালকাঠিতে সংকট নিরসনে হাসপাতালে ২ হাজার স্যালাইন দিলেন "এমপি আমু"। দৈনিক আজকাল বাংলা।।

মানিক হাওলাদার স্টাফ রিপোর্টার।। ২০ এপ্রিল, মংগলবার।। ঝালকাঠিতে ডায়রিয়ার প্রকোপ, ২৪ ঘণ্টায় ৫ শতাধিক আক্রান্ত, সংকটাপন্ন পরিস্থিতিতে সোমবার হাসপাতালে দুই হাজার আইভি স্যালাইন দিলেন সংসদ সদস্য আমির হোসেন আমু।  অপরদিকে গতকাল রোববার নলছিটি পৌর মেয়র আব্দুল ওয়াহেদ খাঁন পৌরসভার পক্ষে ৭০০ এবং ব্যবসায়ী মো. মাহফুজ খাঁন নিজ অর্থায়নে ১০০০ ব্যাগ আইভি স্যালাইন দেন নলছিটি স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে।

এর আগে নলছিটি পৌর মেয়র, উপজেলা চেয়ারম্যান  এবং উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে স্যালাইন সংকটের জন্য সাহায্য চান নলছিটি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স কতৃপক্ষ।  এছাড়া জনবল সংকটের কারণে স্বেচ্ছাসেবীদেরও আপতকালিন এগিয়ে আসার আহ্বান জানানো হয়েছে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের পক্ষ থেকে।  

অন্যদিকে,  রাজাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ফেসবুক পেজ থেকে সবার কাছে স্যালাইন প্রদানের সাহায্য চেয়ে আবেদন করা হয়েছে। আবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে যে, ডায়রিয়ার আক্রান্ত হয়ে স্বাস্থ্যকেন্দ্রে চিকিৎসা নিতে আসাআসা বেশিরভাগ রোগী গরীব মানুষ। ডায়রিয়ার রোগী স্মরণকালের মধ্যে তীব্র আকার ধারণ করায় সরকারি আইভি স্যালাইনের সংকট দেখা দিয়েছে। পরিস্থিতি সামাল দিতে রাজাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স সবার কাছে অনুরোধ করেছে স্যালাইন প্রদানের মাধ্যমে রোগীদের পাশে এসে দাঁড়াতে।

ঝালকাঠির কাঠালিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সেও গত এক সপ্তাহে প্রতিদিন গড়ে ৪০ থেকে ৫০ জন ডায়রিয়া রোগী ভর্তি থাকছেন বলে জানায় স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স সূত্র। 

এদিকে ঝালকাঠিতে সদর হাসসপাতালের ডায়রিয়া ওয়ার্ডে রোগীদের সেবা দিতে হিমসিম খাচ্ছেন ডাক্তার ও নার্সরা। গত ১ সপ্তাহে রোগীর সংখ্যা ১ হাজার ছাড়িয়েছে বলে জানিয়েছে স্বাস্থ্যবিভাগ। 

ঝালকাঠি সিভিল সার্জন ডা. রতন কুমার ঢালী বলেন, অন্য সময়ের চেয়ে এবছর ডায়রিয়া আক্রান্তের হার অনেক বেশি। করোনা ও ডায়রিয়া রোগীদের সেবা দিতে ইতোমধ্যেই ডাক্তার ও নার্সরা ঝাঁপিয়ে পড়েছেন।  স্যালাইন এবং ঔষধের সংকট থাকার কারণ হিসেবে ইডিসিএল থেকে কম উৎপাদন ও কম সরবরাহের কথা জানান তিনি।